ভারতকে হারিয়ে যুবাদের এশিয়া কাপে ফাইনালে বাংলাদেশ

এশিয়া অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেটে বাংলাদেশের অতীত রেকর্ড তেমন একটা ভাল নয়।আগের ৯টি আসরে একবারই (২০১৯) কেবল বাংলাদেশ দেখা পেয়েছে ফাইনালের। শুক্রবার দুবাইয়ে অনুষ্ঠিত সেমিফাইনালে ডিফেন্ডিয় চ্যাম্পিয়ন ভারত অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে ৪৩ বল হাতে রেখে ৪ উইকেটে হারিয়ে চার বছর পর ফাইনালে উঠেছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল। গ্রুপ রাউন্ডে সব ম্যাচ জিতে সেমিফাইনালে উঠে সেমিফাইনালে ভারতকে পাত্তাই দেয়নি বাংলাদেশের যুবারা। দুবাইয়ের আইসিসি ক্রিকেট একাডেমীর মাঠে অনুষ্ঠিত ম্যাচে টসে জিতে পেস বোলার মারুফ মৃধার ভয়ংকর তোপে (৪/৪১) ভারতকে ১৮৮ রানে অল আউট করেই জয়ের আবহ পেয়েছে।

নতুন বলে বাংলাদেশের বোলারদের বোলিংয়ে এক পর্যায়ে ভারতের স্কোর ছিল ৬১/৬। সেখান থেকে ৭ম জুটির ৮৪ রানে স্কোরটা ভারত টেনে নিতে পেরেছে ১৮৮ পর্যন্ত। মুশির খান ৬১ বলে ৫০ এবং মুরুগান ৭৪ বলে ৬২ রান করেছেন। জয়ের জন্য ১৮৯ রানের টার্গেটটা শুরুতে কঠিন মনে হয়েছিল। ব্যাটিং পাওয়ার প্লে-তে ৩ উইকেট হারিয়ে (৩৪/৩) বিপর্যয়ের মুখে পড়া বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে উদ্ধার করেছেন আরিফুল-আহরার। এই জুটির ১৭০ বলে ১৩৮ রানে জয়ের পথ সুগম হয়েছে।

তবে জয় থেকে যখন বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল মাত্র ১৭ রান দূরে, তখন সেঞ্চুরির আশা জাগানো আরিফুল দিয়েছেন ক্যাচ (৯০ বলে ৯ চার, ৪ ছক্কায় ৯৪)। সাউমি পান্ডেকে এক ওভারে মেরেছেন তিনি ৩টি ছক্কা। জয় থেকে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল যখন ২ রান দূরে, তখন অন্য এন্ডে ধৈর্য্য ধরে ব্যাট করা আহরার ফিরে গেছেন (১০১ বলে ৩ বাউন্ডারিতে ৪৪)।ফলে উইনিং রান নিতে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে অপেক্ষা করতে হয়েছে ৭টি বল। দুবাইয়ে অনুষ্ঠিত অন্য ফাইনালে আপসেট ঘটিয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাত। পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দলকে ১১ রানে হারিয়ে (সংযুক্ত আরব আমিরাত ১৯৩/১০, পাকিস্তান ১৮২/১০) ফাইনালে উঠেছে সংযুক্ত আরব আমিরাত। আগামী ১৭ ডিসেম্বর অনূর্ধ্ব-১৯ এশিয়া কাপের ট্রফি নির্ধারণী ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ সংযুক্ত আরব আমিরাত।

পোস্টটি ভালো লাগলে শেয়ার করে অন্যদের পড়ার সুযোগ করে দিন।

খুলনার সময়

একটি সৃজনশীল সংবাদপত্র

ফেসবুক পেজ এ সব খবর

আজকের দিন-তারিখ

  • রবিবার ,বিকাল ৫:৫০
  • ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১২ ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  • ১৫ শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন



আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন