চীনের সাবেক প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াং আর নেই

চীনের সাবেক প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াং

বিশ্ব ডেস্ক: চীনের সাবেক প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াং শুক্রবার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৮ বছর। শুক্রবার (২৭ অক্টোবর) বার্তাসংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। চীনের রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারকারী সিসিটিভির বরাতে সেই প্রতিবেদনে জানানো হয়, ‘সম্প্রতি সাংহাইতে বিশ্রাম নিচ্ছিলেন কমরেড লি কেকিয়াং। ২৬ অক্টোবর আকস্মিক হৃদরোগে আক্রান্ত হন এবং তাকে বাঁচানোর সর্বাত্মক প্রচেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর শুক্রবার (২৭ অক্টোবর) রাত ১২ টা ১০ মিনিটে মধ্যরাতে সাংহাইতে মারা যান।’

২০১৩ সাল থেকে প্রায় ১০ বছর চীনের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বপালন করেছেন তিনি। মাত্র ১০ মাস আগে চীনের প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে অবসরে যান কেকিয়াং। গত বছর অবসর নেয়ার আগ পর্যন্ত তিনি ক্ষমতাসীন চীনা কমিউনিস্ট পার্টির দ্বিতীয় শক্তিশালী ব্যক্তি ছিলেন।

বিবিসি বলছে, ক্ষমতার প্রথাগত কোনও ভিত্তি না থাকা সত্ত্বেও লি কেকিয়াং দলীয় উচ্চ পদে উন্নীত হয়েছিলেন। তবে বিশ্লেষকরা বলেছেন, চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং তার চারপাশে ক্ষমতা কুক্ষিগত করার সাথে সাথে কেকিয়াং তার ক্যারিয়ারের শেষ দিকে ক্রমবর্ধমানভাবে ক্ষমতা কাঠামোতে সাইডলাইনে পড়ে গিয়েছিলেন।

নিজের শেষ মেয়াদে কেকিয়াংই ছিলেন একমাত্র পদস্থ শীর্ষ কর্মকর্তা যিনি প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের অনুগত গোষ্ঠীর অন্তর্গত ছিলেন না। অভিজাত পিকিং বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শিক্ষিত এই নেতা অর্থনৈতিক নীতিতে বাস্তববাদী হওয়ার জন্য পরিচিত ছিলেন।

২০১৩ সালে লি কেকিয়াং চীনের প্রধানমন্ত্রী হন। উদারপন্থি হিসেবে পরিচিত এই নেতা চীনের রাজনৈতিক-সামাজিক পরিসরে পরিবর্তন আনতে কাজ করবেন এমনটিই প্রত্যাশা ছিল। পশ্চিমা বিশ্লেষকদের অনেকে এই প্রশিক্ষিত অর্থনীতিবিদকে নিয়ে আশাবাদও ব্যক্ত করেছিলেন। কিন্তু বলা হয়, প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং নানাভাবে তার ক্ষমতা খর্ব করে দিয়েছিলেন।

পোস্টটি ভালো লাগলে শেয়ার করে অন্যদের পড়ার সুযোগ করে দিন।

খুলনার সময়

একটি সৃজনশীল সংবাদপত্র

ফেসবুক পেজ এ সব খবর

আজকের দিন-তারিখ

  • শনিবার ,রাত ৮:০৩
  • ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১১ ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  • ১৪ শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন



আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন