সরকারকে পদত্যাগে সময়সীমা বেঁধে দিলেন চরমোনাই পীর

সরকারকে পদত্যাগে সময়সীমা বেঁধে দিলেন চরমোনাই পীর

অনলাইন ডেস্ক: সরকারকে আগামী সাত দিনের মধ্যে পদত্যাগের আলটিমেটাম দিয়েছেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের আমির মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম (চরমোনাই পীর)। না হলে কঠোর আন্দোলন কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। শুক্রবার (৩ নভেম্বর) বিকেলে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মহাসমাবেশ থেকে চরমোনাই পীর এই আলটিমেটাম দেন। ইসলামী আন্দোলনের আমির বলেন, ‘আগামী ১০ নভেম্বরের মধ্যে আওয়ামী লীগ সরকারকে পদত্যাগ করে জাতীয় সরকার হঠন করতে হবে। দেশের সরকার যখন যা খুশি করবে আর এ দেশের জনগণ নাকে তেল দিয়ে ঘুমাবে, তা হতে পারে না। ২০১৪ আর ১৮ সালের মতো সাজানো নির্বাচন এই দেশে আর হতে দেওয়া হবে না। আজ ৩ নভেম্বর। আজ সরকারের মেয়াদ শেষ। এই কারণেই আজকের দিনকে মহাসমাবেশের তারিখ নির্ধারণ করেছি।’ এ সময় চার দফা কর্মসূচি ঘোষণা করেন চরমোনাই পীর।

দাবিগুলো হলো- ১. ১০ নভেম্বর ২০২৩-এর মধ্যে সরকারকে পদত্যাগ করে এবং জাতীয় সংসদ ভেঙে দিয়ে সকল নিবন্ধিত এবং প্রতিনিধিত্বশীল আন্দোলনরত রাজনৈতিক দলের সমন্বয়ে গঠিত জাতীয় সরকারের কাছে ক্ষমতা হস্তান্তর করতে হবে।

২. বিদ্যমান রাজনৈতিক সংকট নিরসনে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে রাজনৈতিক কারণে কারারুদ্ধ বিএনপিসহ সকল শীর্ষ নেতৃবৃন্দকে মুক্তি দিয়ে রাষ্ট্রপতিকে সকল রাজনৈতিক দলের সঙ্গে জাতীয় সংলাপের উদ্যোগ গ্রহণ করতে হবে।

৩. সরকার এসব দাবি মেনে না নিলে, আন্দোলনরত সকল বিরোধী দলের সঙ্গে আলোচনা করে পরবর্তী সময়ে কঠোর ও বৃহত্তর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।

৪. জনগণের ভোটাধিকার প্রতিষ্ঠার দাবিতে এবং অবৈধ সরকারের পতনের লক্ষ্যে বিএনপিসহ বিরোধী দলসমূহের সকল শান্তিপূর্ণ কর্মসূচির প্রতি সমর্থন ঘোষণা করছি।

পোস্টটি ভালো লাগলে শেয়ার করে অন্যদের পড়ার সুযোগ করে দিন।

খুলনার সময়

একটি সৃজনশীল সংবাদপত্র

আমাদের ফেসবুক পেজ

আজকের দিন-তারিখ

  • রবিবার ,রাত ১২:৩৩
  • ২৬ মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১২ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  • ১৮ জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপন দিন